1. admin@avasmultimedia.com : Kaji Asad Bin Romjan : Kaji Asad Bin Romjan
বিসমিল্লাহ’, ‘আল হামদুলিল্লাহ’ ইত্যাদি বাক্যের মাধ্যমে দোকান বা ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানের নাম করণের বিধান | Avas Multimedia বিসমিল্লাহ’, ‘আল হামদুলিল্লাহ’ ইত্যাদি বাক্যের মাধ্যমে দোকান বা ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানের নাম করণের বিধান | Avas Multimedia
শনিবার, ৩১ জুলাই ২০২১, ০১:১৫ পূর্বাহ্ন

বিসমিল্লাহ’, ‘আল হামদুলিল্লাহ’ ইত্যাদি বাক্যের মাধ্যমে দোকান বা ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানের নাম করণের বিধান

প্রতিবেদকের নাম
  • আপডেটের সময় : বৃহস্পতিবার, ৩ জুন, ২০২১
  • ১৫ বার দেখেছে
‘বিসমিল্লাহ’, ‘আল হামদুলিল্লাহ’ ইত্যাদি বাক্যের মাধ্যমে দোকান বা ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানের নাম করণের বিধান
▬▬▬ ◈◉◈▬▬▬
প্রশ্ন: আমাদের দেশে দেখা যায়, বিভিন্ন দোকান বা ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানের নাম ‘বিসমিল্লাহ’ ‘আল হামদুলিল্লাহ’ ইত্যাদি শব্দের দ্বারা রাখা হয়। এটা কি ঠিক?
উত্তর:
দোকান, মার্কেট, হোটেল, গাড়ি, লঞ্চ ইত্যাদির নামকরণের ক্ষেত্রে বিসমিল্লাহ, আল হামদুলিল্লাহ, সুবহানাল্লাহ ইত্যাদি বাক্যের ব্যবহার বৈধ নয়। যেমন মেসার্স বিসমিল্লাহ ট্রেডার্স, বিসমিল্লাহ পরিবহন, হোটেল আল হামদুলিল্লাহ, আলহামদুলিল্লাহ রেস্টুরেন্ট ইত্যাদি। এভাবে নাম করণ করা শরিয়ত সম্মত নয়। কারণ এতে করে আল্লাহ তাআলা যে মহান উদ্দেশ্যে আমাদেরকে এ সকল মর্যাদাপূর্ণ জিকির ও তাসবিহ এর বাক্য সমূহ শিক্ষা দিয়েছেন সেখান থেকে দূরে সরে এগুলোকে দুনিয়া অর্জনের মাধ্যমে হিসেবে ব্যবহার করা হয়। অন্য কথায়, এটি ‘আল্লাহর দ্বীনকে ব্যবসায়িক স্বার্থে’ ব্যবহারের অন্তর্ভুক্ত।
মহান আল্লাহর নাম ও জিকিরের এ সকল ফযিলত পূর্ণ বাক্যকে অপাত্রে ব্যবহার করা হলে এতে এক দিকে যেমন দ্বীনকে দুনিয়ার স্বার্থে ব্যবহার করা হয় অন্য দিকে এর মাধ্যমে এগুলোর সম্মানহানি করা হয়।
সুতরাং এ সকল বাক্যের মাধ্যমে মার্কেট, হোটেল, পরিবহন বা অন্য কোন প্রতিষ্ঠানের নাম করা থেকে বিরত থাকা আবশ্যক। সৌদি আরবের স্থায়ী ফতোয়া কমিটিও এ ধরণের নাম করণের অবৈধতার ফতোয়া প্রদান করেছেন।
سئلت اللجنة الدائمة: أفيدوا فضيلتكم بأن الأمانة لاحظت وجود بعض أسماء نشك في صلاحيتها على بعض المطاعم والملاحم في بعض أنحاء مدينة الرياض مثل: مطعم الحمدلله، وملحمة بسم الله، وملحمة التوكل على الله ـ وحيث نرغب الاستفسارعن جواز إطلاق مثل هذه الأسماء على هذه المحلات، نرجو إرشادنا، شكر الله مسعاكم ـ فأجاب علماء اللجنة بما يلي: لا يجوز ذلك لما فيه من الاستهانة بالأذكار، وبأسماء الله تعالى، واستعمال ذلك فيما لا يليق، واتخاذه وسيلة لأغراض تخالف ما قصده الشرع المطهر بها. انتهى
আল্লাহ তাআলা আমাদেরকে তার অসন্তোষ থেকে হেফাজত করুন। আমীন।
আল্লাহু আলাম।
▬▬▬ ◈◉◈▬▬▬
উত্তর প্রদানে:
আব্দুল্লাহিল হাদী বিন আব্দুল জলীল মাদানি
দাঈ, জুবাইল দাওয়াহ এন্ড গাইডেন্স সেন্টার

এই পোস্টটি আপনার সামাজিক মাধ‌্যমগুলোতে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর..

আজকের দিন-তারিখ

  • শনিবার (রাত ১:১৫)
  • ৩১শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
  • ২১শে জিলহজ, ১৪৪২ হিজরি
  • ১৬ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ (বর্ষাকাল)
© সমস্ত অধিকার সংরক্ষিত-২০২০-২০২১ ‍avasmultimedia.com
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Jp Host BD